মাগুরায় কালবৈশাখী ঝড়ে তিনজনের মৃত্যু

205

শালিখা (মাগুরা) প্রতিনিধি : মাগুরায় শুক্রবার সন্ধ্যায় ও শনিবার সকালে দুই দফা কালবৈশাখী ঝড়ে তিনজন মারা যাওয়ার খবর নিশ্চিত করেছে জেলা প্রশাসন। আহত আরও ৯ জনকে মাগুরা ২৫০ শয্যা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
মাগুরা সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবু সুফিয়ান জানান, শুক্রবার সন্ধ্যায় কাল বৈশাখী ঝড় উপজেলার ছোনপুর, মাধবপুর, জগদল মহম্মপুরের বিনোদপুর, রাজাপুর কালীশংকরপুরসহ কয়েকটি গ্রামে আঘাত হানে। ঝড়ে আহত মাগুরা মোল্লা পাড়ার আলী হোসেন আজ শনিবার ঢাকায় চিকিৎসাধীন আবস্থায় মারা গেছেন। এছাড়া সদরের বেরইল পলিতা গ্রামের কৃষক আকরাম হোসেন ও মহম্মদপুর উপজেলার রাজাপুর গ্রামের শিশু রোহান শুক্রবার মারা যান।
এছাড়া শিলা বৃষ্টি ঝড়ে সদরের জগদলের রূপাটি গ্রামসহ বিভিন্ন গ্রামের নারীসহ ৯ জন আহত হয়েছে। গ্রামের আলিম, সুজন, খোকন, লিমা, মনিরা, সাহাবুদ্দিন, আবু হুরাইরা, জেসমিন ও রাকিবকে মাগুরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
ঝড়ে দেড় শতাধিক ঘরবাড়ি ও ৫০ হেক্টর ফসলি জমি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে জেলা প্রশাসন। তবে কৃষি বিভাগ এ ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ দশ কোটি টাকা ছাড়িয়ে যাওয়ার আশঙ্কা করছে।
জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আতিকুর রহমান জানান, ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে বিতরণের জন্য ইতোমধ্যে নগদ ৫০ হাজার টাকা, ৫০টন চালসহ টিন বরাদ্দ দেয়া হয়েছে।
ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত মাদবপুর গ্রামের মিলন হোসেন জানান, প্রচণ্ড শিলাবৃষ্টিতে ঘরের টিন ছিদ্র হয়ে গেছে। নতুন করে টিন লাগাতে না পারলে বসত ঘরগুলো বসবাসের অযোগ্য হয়ে পড়বে। ধানক্ষেত সম্পূর্ণ নষ্ট হয়েছে।