এই গ্রামের সব পুরুষই দু’বার বিয়ে করেন

222

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : দু’বার বিয়ে করে গ্রামের সব পুরুষ। কিন্তু, তাতে কোনও সামাজিক বা আইনগত সমস্যা হয় না। ভারতের রাজস্থানের এই প্রত্যন্ত গ্রামের রীতি পুরুষদের দু’বার বিয়ে করা। কিন্তু কেন? অনেকেই হয়তো জানেন না।
ভারত-পাকিস্তান সীমান্তের কাছে রাজস্থানের ছোট্ট গ্রাম দেরাসর। বারমেঢ় জেলার এই গ্রামের প্রত্যেক পুরুষেরই দু’বার বিয়ে বাধ্যতামূলক।

গ্রামে প্রায় ৬শ মানুষের বসবাস। গ্রামটি মূলত মুসলিম প্রভাবিত। রয়েছে প্রায় ৭০টি পরিবার। গ্রামবাসীদের দাবি, প্রত্যেক পরিবারই নাকি পরম্পরাগতভাবে বিয়ে নিয়ে এই রীতি মেনে আসছে।
এক প্রকার জোর করেই ছেলেদের দ্বিতীয়বার বিয়ে করতে বাধ্য করে তাদের পরিবার। গ্রামবাসীদের দাবি, আগে গ্রামে যত পুরুষ বিয়ে করতেন, তাদের কারোরই প্রথম পক্ষের স্ত্রীর কোন সন্তান হত না। তাই দ্বিতীয় বার বিয়ে করতে হতো। সেই দ্বিতীয় পক্ষের স্ত্রীর গর্ভেই নাকি সন্তান আসত।
বহুকাল ধরে এমন ঘটনাই ঘটছে। তারপর সেটাকেই রীতি হিসেবে মেনে নেন গ্রামবাসীরা। এখনও নাকি এমন ঘটনাই ঘটে চলেছে গ্রামটিতে। যদিও এই ঘটনার কোনও ব্যাখ্যা দিতে পারেননি কেউই। গ্রামবাসীদের কথায়, প্রথমবার বিয়ের পর অনেকেই দীর্ঘকাল সন্তানের জন্য অপেক্ষা করেছেন, এ রকম উদাহরণ প্রচুর রয়েছে। তাই দ্বিতীয়বার বিয়ে করাটাকে এই গ্রামে শুভ বলেই মনে করা হয়।

Previous articleবাংলাদেশের চাই ‘৮ উইকেট’, জিম্বাবুয়ের ৩৬৭ রান
Next articleকঙ্কানি রীতিতে বিয়ে করলেন দীপবীর