চট্টগ্রামে প্রথম দিনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের দাপট

188

ক্রীড়া ডেস্ক : উইকেট পুরোপুরি ব্যাটিং সহায়ক। একটু সবুজ ঘাস থাকলেও সেখানে নেই পেসারদের জন্য তেমন কোনো সহায়তা। চট্টগ্রামে দুই দিনের প্রস্তুতি ম্যাচের প্রথম দিনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের ব্যাটসম্যানদের তেমন একটা পরীক্ষায় ফেলতে পারলেন না বিসিবি একাদশের বোলাররা। দারুণ ব্যাটিংয়ে ফিফটি তুলে নিয়েছেন শেই হোপ ও কাইরন পাওয়েল।
এমএ আজিজ স্টেডিয়ামে আলোকস্বল্পতায় আগেভাগে খেলা শেষ হওয়ার আগে ৬ উইকেটে ৩০৩ রান করে ওয়েস্ট ইন্ডিজ।
টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুতেই ক্রেইগ ব্র্যাথওয়েটকে হারায় সফরকারীরা। শফিউল ইসলামের বলে ব্যাকফুটে পাঞ্চ করতে গিয়ে বোল্ড হয়ে যান ডানহাতি ওপেনার।
দ্বিতীয় উইকেটে হোপ-পাওয়েলের শতরানের জুটিতে শুরুর ধাক্কা সামাল দিয়ে দৃঢ় ভিতের ওপর দাঁড়ায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। অলরাউন্ডারসহ পাঁচ পেসার আর তিন স্পিনারে গড়া বিসিবি একাদশের বোলিং লাইনআপ একটু ভাবাতে পারেনি সফরকারীদের দুই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানকে।
প্রথম ঘণ্টার পর আক্রমণে আসেন প্রথম টেস্টের দলে থাকা নাঈম। শুরুতে তার ওপর চড়াও হন হোপ। দ্বিতীয় ওভারে তুলে নেন ছক্কা-চার। নতুন বলে লাইন-লেংথ নিয়ে কিছুটা ভুগতে হয় তরুণ অফ স্পিনারকে।
ওয়েস্ট ইন্ডিজের দ্বিতীয় উইকেট জুটি ভাঙতে পারেনি বাংলাদেশ। ১১২ বলে তিন ছক্কা আর ১০ চারে ৮৮ রান করে হোপ মাঠ ছাড়েন হোপ। এরপর বেশিক্ষণ টিকেননি পাওয়েল।
বাঁহাতি স্পিনিং অলরাউন্ডার ফজলে মাহমুদ রাব্বিকে প্যাডেল সুইপ করতে চেয়েছিলেন পাওয়েল। ঠিক মতো পারেননি, ডান হাত বাড়িয়ে বলের গতি কিছুটা কমিয়ে দেন কিপার লিটন দাস। দ্রুত বেরিয়ে যাওয়া ক্যাচ স্লিপে থাকা শান্তর হাতে লেগে কিছুটা ওপরে উঠে যায়। শর্ট লেগ থেকে ছুটে গিয়ে ঝাঁপিয়ে ক্যাচ মুঠোয় নেন জাকির হাসান।
পুরানো বলে ওয়েস্ট ইন্ডিজের ব্যাটসম্যানদের কিছুটা ভুগিয়েছেন নাঈম। অ্যাঙ্গেলে ভেতরে ঢোকা বলে বোল্ড করে দ্রুত ফিরিয়েছেন সুনিল আমব্রিসকে।
ওয়েস্ট ইন্ডিজের সঙ্গে সবশেষ সিরিজে ব্যাট হাতে বাংলাদেশকে ভোগানো শিমরন হেটমায়ার ক্রিজে এসেই শট খেলতে শুরু করেছিলেন। দ্রুত রান তোলার চেষ্টায় থাকা বাঁহাতি ব্যাটসম্যান নাঈমকে বেরিয়ে এসে উড়ানোর চেষ্টায় মিড অফে রিশাদ হোসেনের হাতে ধরা পড়েন।
শুরু থেকেই শট খেলছিলেন শেন ডাওরিচ। তাকে বেশিদূর এগোতে দেননি সৌম্য সরকার। কট বিহাইন্ড করে ফেরান সফরকারীদের কিপার ব্যাটসম্যানকে।
এক প্রান্ত আগলে রাখা রোস্টন চেইসের বাধা উপড়ে ফেলেন রুবেল হোসেন। নিচু হওয়া স্লোয়ারে এলবিডিব্লিউ হয়ে যান ৯৭ বলে ৩৫ রান করা মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান।
দিনের শেষ বেলায় আক্রমণাত্মক ব্যাটিংয়ে দলের সংগ্রহ তিনশ রানে নিয়ে যান রেমন্ড রেইফার ও কিমো পল।
প্রথম দিন ৮৬.৩ ওভারের ৪৭.৩ ওভার বোলিং করেন তিন স্পিনার নাঈম, রিশাদ ও মাহমুদ। সবচেয়ে বেশি ২৭ ওভার করে ১০৪ রানে ২ উইকেট নেন নাঈম।
সংক্ষিপ্ত স্কোর:
ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১ম ইনিংস: ৮৬.৩ ওভারে (ব্র্যাথওয়েট ৬, পাওয়েল ৭২, হোপ আহত অবসর ৮৮*, আমব্রিস ১৭, চেইস ৩৫, হেটমায়ার ২৪, ডাওরিচ ২৪, রেইফার ১৪*, পল ১৮*; শফিউল ১/২৩, রুবেল ১/৪০, ইবাদত ০/৩৬, রবিউল ০/২১, নাঈম ২/১০৪, রিশাদ ০/৫৫, মাহমুদ ১/১১, সৌম্য ১/১০)

Previous articleএনগেজমেন্ট রিং, নৌকা আর নিরাপত্তায় কত খরচ হল জানেন?
Next articleবাঙালি হলে মিলবে না চাকরি, বিজ্ঞাপনে তোলপাড় কলকাতা