রসিকতার জের : যশোরে দু’পক্ষের বোমাবাজি, আহত ৫

137

কল্যাণ রিপোর্ট : বিয়েবাড়িতে রসিকতার মতো তুচ্ছ ঘটনার জের ধরে রোববার সকালে যশোর সদরের বিরামপুরে দু’পক্ষের বোমাবাজি, মারপিট ও ছুরিকাঘাতে ৫ জন আহত হয়েছে। এদের মধ্যে ৪ জনকে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
ঘটনার সঙ্গে জড়িত অভিযোগে পুলিশ দু’জনকে আটক করেছে।
আহতরা হচ্ছে, বিরামপুর এলাকার আব্বাস আলীর ছেলে মিরাজ (১৮), হাসানুজ্জামানের ছেলে হাসিব (১৮), জাহিদ হোসেনের ছেলে আকাশ (১৭), শাহ আলমের ছেলে রাজু (১৮) এবং সাগর (১৭) নামে অপর এক যুবক। এদের মধ্যে সাগর প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফিরে গেছে।
আহতদের পরিবার ও পুলিশ জানিয়েছে, গত শুক্রবার (২৮ জুন) বিরামপুর এলাকার রিপনের বাড়িতে বিয়ের অনুষ্ঠান চলছিল। সে সময় আকাশ নামে এক তরুণ রসিকতার ছলে একজনের লুঙ্গি ধরে টান মারে। এতে ওই ব্যক্তি বিব্রতকর পরিস্থিতিতে পড়লে বিষয়টি নিয়ে দু’জনের মধ্যে কথা কাটাকাটি ও হাতাহাতি হয়। সেখানে উপস্থিত শাহ আলমের ছেলে রাজুসহ অন্যরা বিষয়টি মিটিয়ে দেন। তবে এর পরও আকাশকে ছুরিকাঘাত করা হয়। এই নিয়ে দু’পক্ষের মধ্যে অসন্তোষ বিরাজ করছিল।
রোববার সকালে রাজু ও তার লোকজন হাসিবের বাড়িতে গিয়ে আবারও হুমকি দেয়। এতে ক্ষিপ্ত হয় হাসিব। সে আকাশ, মিরাজ, সাগরসহ অন্যদের সঙ্গে নিয়ে বিরামপুরের বড়মসজিদ এলাকায় রাজুকে একা পেয়ে কুপিয়ে জখম করে। একইসঙ্গে ৩/৪টি বোমার বিস্ফোরণ ঘটানো হয়।
এ ঘটনায় রাজুপক্ষের লোকজন মিরাজ, হাসিব ও আকাশকে মারপিট ও ছুরিকাঘাত করে। সংবাদ পেয়ে দু’পক্ষের পরিবারের লোকজন ও আশেপাশের লোকজন গিয়ে তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে।
আহত হাসিবের মা মনিরা দাবি করেছেন, সকালে হাসিব ও তার বন্ধুরা বড় মসজিদ এলাকায় বসে গল্প করছিল। সে সময় রাজুসহ অন্যরা তাদের ওপর বোমা হামলা করে।
রাজুর বাবা শাহ আলম পাল্টা দাবি করেছেন, রাজু কাজের জন্য দোকানে যাচ্ছিল। সে সময় তার ওপর বোমা হামলা ও ছুরিকাঘাত করা হয়।
সংবাদ পেয়ে কোতোয়ালি থানার ওসি (অপারেশনস) শামসুদ্দোহা, উপশহর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই ফারুক হোসেন ফোর্সসহ হাসপাতালে পৌঁছান। তারা হাসপাতাল থেকে রাজুপক্ষের নাহিদ হাসান এবং বিরামপুর ফকিরার মোড়ের আতিয়ার খানের ছেলে এমরান খানকে আটক করেন।
কোতোয়ালি থানার ওসি (অপারেশনস) শামসুদ্দোহা জানান, দু’পক্ষের মধ্যে বোমাবাজি ও মারামারির সংবাদ শুনেছি। বিরামপুরে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। এই ঘটনায় দু’জনকে আটক করা হয়েছে। পুলিশ ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের আটকের চেষ্টা করছে।

Previous articleশিশু শাহীনের ভ্যান নিয়ে যাওয়া সেই ছিনতাইকারীদের খুঁজছে পুলিশ
Next articleরিফাত হত্যাকারীদের তালিকা সীমান্তে : বেনাপোলে সতর্কতা

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here