যশোরে নিখোঁজ সেই ছাত্রদল নেতা অস্ত্রসহ আটক

170

কল্যাণ রিপোর্ট : যশোর সদর উপজেলা দেয়াড়া ইউনিয়ন ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম হোসেন ও তার বন্ধু রিপন হোসেন নিখোঁজ হওয়ার পাঁচদিন পর অস্ত্রসহ র‌্যাবের হাতে আটক হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৮ জুন) সন্ধ্যায় তাদের বিরুদ্ধে র‌্যাব বাদি হয়ে অস্ত্র ও ডাকাতি আইনের পৃথক ধারায় দু’টি মামলা করে মণিরামপুর থানায় সোপর্দ করেছে।
আটক ইব্রাহিম হোসেন যশোর সদর উপজেলার দেয়াড়া ইউনিয়ন ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক ও নতুনহাট গ্রামের মাহবুব মোল্লার ছেলে। অপরজন তার বন্ধু রিপনের বাড়ি সদর উপজেলার মেঘলা গ্রামের বাসিন্দা।
র‌্যাব জানায়, ডাকাতির প্রস্তুতিকালে তাদের আটক করা হয়। এসময় অভিযানে এক রাউন্ড গুলি ভর্তি একটি ওয়ান শুটারগান এবং একটি রামদাসহ তাদেরকে আটক করা হয়।
এদিকে, নিখোঁজের প্রথম দিন থেকেই ইব্রাহিম হোসেনের পরিবার দাবি করে আসছে, গত ১৩ জুন রাতে ঝিকরগাছার লাউজানি বাজারের একটি চায়ের দোকানের সামনে থেকে তাকে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যের পরিচয়ে একটি মাইক্রোবাসে উঠিয়ে নেওয়া হয়েছে। এরপর যশোরে পুলিশ ও র‌্যাব অফিসে খোঁজ নিয়েও তার সন্ধান মেলেনি। সন্ধান না পেয়ে মঙ্গলবার (১৬ জুন) দুপুরে তার মা নূরজাহান বেগম ঝিকরগাছা থানায় একটি জিডি করেন। এছাড়া বৃহস্পতিবার (১৮ জুন) তাদের সন্ধান চেয়ে ছাত্রদল স্মারকলিপি দেয় জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারের কাছে।
মণিরামপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) শিকদার মতিয়ার রহমান বলেন, র‌্যাব-৬ খুলনা কোম্পানি স্পেশাল কমান্ডের ওয়ারেন্ট অফিসার রিপন শিকদারের দায়ের করা মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে, বুধবার (১৭ জুন) দিনগত রাতে মণিরামপুর উপজেলার চিনাটোলা গ্রামের আসাদের বাড়ির পাশের বাগানে বসে ডাকাতির প্রস্তুতি চলছে-এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৬ খুলনার একটি টিম সেখানে অভিযান চালায়। তারা রাত দেড়টার দিকে এক রাউন্ড গুলিভর্তি একটি ওয়ান শুটারগান এবং একটি রামদাসহ ইব্রাহিম হোসেন এবং রিপন সরদারকে আটক করে।

Previous article‘মাশরাফি-সাকিব ভাই কোথায়, আর আমি কোথায়!’
Next articleআল্লাহ সবাইকে সোশ্যাল সাইট থেকে রক্ষা করুক : আফ্রিদি

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here