রাসেল হত্যা মামলায় নয় আসামির আত্মসমর্পণ

0
12

 

কল্যাণ রিপোর্ট : বঙ্গবন্ধু ছাত্র পরিষদের যশোর জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক সাব্বির আহমেদ রাসেল হত্যা মামলায় আরবপুর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক সদস্যসহ নয়জন আদালতে আত্মসমর্পণ করেছেন।
গতকাল বৃহস্পতিবার তারা আত্মসমর্পণের পর জামিন আবেদন করলে জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সাইফুদ্দীন হোসাইন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। আসামিরা হলেন,যশোর সদর উপজেলার বালিয়া ভেকুটিয়া গ্রামের সেকেন্দার আলীর ছেলে খাইরুল ইসলাম, আবু তাহেরের ছেলে সবুজ হোসেন, শাহাদতের ছেলে শামীম,রুহুল আমিনের ছেলে সেলিম মিয়া, বাগদিয়া গ্রামের আয়নাল মিয়ার ছেলে মোহাম্মদ আলমগীর, বাঁশবাড়িয়া গ্রামের মোসলেম সরদারের ছেলে রমজান সরদার, মোশারেফের ছেলে আশিক হোসেন শাহাদত হোসেনের ছেলে শহিদুজ্জামান শহিদ ও দুলালের ছেলে আজাদ। এ

সাব্বির আহমেদ রাসেল

বছরের ১৫ এপ্রিল আধিপত্য বিস্তার নিয়ে বালিয়া ভেকুটিয়া গ্রামের সালেক মৃধার ছেলে রাসেলকে (২৩) কুপিয়ে হত্যা করে স্থানীয় সন্ত্রাসীরা। সন্ত্রাসীদের হামলা ঠেকাতে গিয়ে রাসেলের বড় ভাই আল-আমিন (২৬) জখম হয়। এদিকে, এ ঘটনায় নিহতের বাবা বাদী হয়ে ২৪ জনের নাম উল্লেল করে অজ্ঞাতনামা আরও সাত-আটজনের বিরুদ্ধে কোতোয়ালি থানায় মামলা করেন। পুলিশ হত্যার সাথে জড়িত অভিযোগে পরের দিন ইমদাদুল হক, এমএ রিজাউল ইসলাম ও সাগরসহ ওমর আলী চারজনকে আটক করে। এর মধ্যে সাগর হত্যার কথা স্বীকার করে ওইদিনই আদালতে জবানবন্দি দেয়। এরপর আবার এই মামলার আরেক আসামি শাহিন আলমকে আটক করে পুলিশ। এই মামলার অন্যতম আসামি পিচ্চি বাবুকে আটক করে। পরে সে আদালতে স্বীকার করে পূর্ব শত্রুতার জের ধরে ১৯ জন মিলে পূর্বপরিকল্পিতভাবে রাসেলকে হত্যা করা হয়েছে । এদিকে, মামলার এ নয় আসামি দীর্ঘদিন পলাতক থাকার পর আদালতে আত্মসমর্পণ করলে আদালত তাদেরকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

LEAVE A REPLY