মাঠে ফিরেই রোমাঞ্চিত ক্রিকেটাররা

12

ক্রীড়া ডেস্ক : মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামের ড্রেসিংরুমের সামনে ক্রিকেটারদের জটলা। জটলার মধ্যমণি প্রধান কোচ রাসেল ডমিঙ্গো। অনুশীলনে কার কী করতে হবে, সেটিই হয়তো বুঝিয়ে দিচ্ছিলেন খেলোয়াড়দের। এরপর ক্রিকেটারদের একটা দল গেল ইনডোরে। আরেক দল রয়ে গেল মাঠেই, ফিল্ডিং কোচ রায়ান কুকের সঙ্গে।
ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ সামনে রেখে আজ শুরু হয়েছে জাতীয় দলের ক্যাম্প। নিষেধাজ্ঞা থেকে ফেরা সাকিব আল হাসানসহ ওয়ানডের প্রাথমিক দলে ডাক পাওয়া ২৪ ক্রিকেটারই যোগ দিয়েছেন তাতে। চোটের কারণে পারভেজ হোসেন অবশ্য রোববার অনুশীলন করেননি। যোগ দিয়েছেন টেস্ট দলের তিন পেসার আবু জায়েদ, এবাদত হোসেন ও খালেদ আহমেদও।
বাংলাদেশ দল সর্বশেষ আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলেছে গত বছরের মার্চে, ঘরের মাঠে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে। করোনার দীর্ঘ বিরতির পর গত অক্টোবরে শ্রীলঙ্কা সিরিজ সামনে রেখে জাতীয় দলের ক্রিকেটাররা ক্যাম্পে এলেও শেষ পর্যন্ত সিরিজটি স্থগিত হয়ে যায়। অবশেষে ক্রিকেটারদের মাঠে ফেরার অপেক্ষার অবসান হতে যাচ্ছে ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ দিয়ে। প্রতিপক্ষ ওয়েস্ট ইন্ডিজ দল রোববার সকালেই ঢাকায় পা রেখেছে। খেলবে তিনটি ওয়ানডে ও দুটি টেস্ট।
প্রথম দিনের অনুশীলন শেষে দলের তরুণ সদস্য নাজমুল হোসেন বলছিলেন, ‘অনেক দিন পর সবাই একসঙ্গে জাতীয় দলের ক্যাম্পে যোগ দিয়েছি। খুব ভালো একটা প্র্যাকটিস সেশনও হয়েছে।’ টানা তিন দিনের অনুশীলন শেষে নিজেদের মধ্যে ভাগ হয়ে দুটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবেন বাংলাদেশ দলের ক্রিকেটাররা। ১৪ ও ১৬ জানুয়ারি বিকেএসপিতে হবে ম্যাচ দুটি। অনুশীলন ও প্রস্তুতি ম্যাচ দিয়ে দীর্ঘদিন পর আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তনের জন্য নিজেদের প্রস্তুত করবেন ক্রিকেটাররা।
নাজমুলের আশা, ২০ জানুয়ারির প্রথম ওয়ানডেতে পূর্ণ প্রস্তুতি নিয়েই খেলতে নামবে বাংলাদেশ, ‘আমরা এক বছর পর আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলতে যাচ্ছি। প্রস্তুতি মোটামুটি ভালোই হচ্ছে। কয় দিন আগেই একটা টুর্নামেন্ট খেলেছি, প্রেসিডেন্টস কাপও আমরা প্রায় সবাই খেলেছি। প্রস্তুতি ম্যাচও হবে। প্রস্তুতি ম্যাচগুলো যদি আমরা ভালোভাবে করতে পারি, তাহলে আমার মনে হয় খুব বেশি একটা সমস্যা হবে না।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here